top of page

মুখরোচক - পেঁয়াজকলি


বিকালে চায়ের পাট শেষ করে ভাবছি ,রাতে কি রাঁধবো ? কি রাঁধবো ? তরকারির ঝুড়িতে কি আছে দেখিতো ,এইভেবে উঁকি মারতেই চোখে পড়লো ,কতকগুলো সবুজ পেঁয়াজকলি দিকে | সঙ্গে সঙ্গেই ঠিক করে ফেললাম ,ঠিক আছে আজ রাতে রাঁধবো ,গরমভাতে ,গরম গরম মুসুরির ডালের সঙ্গে একটু মুখরোচক করে পেঁয়াজকলি ভাজা | মনে হয় সবারই খুব ভালো লাগবে |


একটা স্পেশাল কথা | পেঁয়াজকলিও অনেক অনেক ঔষুধি গুনে ভরা | আসল কথাটা হলো আমাদের খাদ্য হিসাবে পরিচিত সমস্ত শাক সবজিই কোনো না কোনো খাদ্যগুনে ভরা|শুধু আমাদের গ্রহণ করতে হবে | প্রকৃতি সব সাজিয়েই রেখেছে | শুধু আমাদের নেওয়ার অপেক্ষা | পেঁয়াজকলি শরীরের প্রদাহ কমাতে ,অন্ত্রের কার্যকারিতা ভালো রাখতে , অরুচি মুখের রুচি ফেরাতে ....অতুলনীয় | খুব সুন্দর , খুব রুচিকর | তাই পেঁয়াজকলির সিজনে ছোট থেকে বড়ো আমাদের সবারই মাঝে মধ্যেই পেঁয়াজকলির নানা মেনু খাওয়া যেতেই পারে|


রাতের রান্নার প্রস্তুতির আয়োজন শুরুই করে দিলাম | মেনু শুনে বাড়ির সবাই খুশি | খুশি কেন হবেনা ,সবার ভীষণ প্রিয় যে পেঁয়াজকলি | তাই আমিও খুশি খুশি মনেই রান্নাঘরে ঢুকে গেলাম |


উপকরণ :-


  • পেঁয়াজকলি - ২৫০ গ্রাম(একটু লম্বা লম্বা টুকরো টুকরো করে কাটা )

  • আলু - ৪টি ( মাঝারি সাইজের, খোসা ছাড়ায়ে ছোট ছোট ডুমো ডুমো করে কাটা )

  • কাঁচালঙ্কা - ৪-৫টি ( ২-৩ টুকরো করে কাটা )

  • হলুদ - ১ চামচ

  • নুন - প্রয়োজনমতো

  • চিনি - প্রয়োজনমতো

  • সর্ষের তেল - ভাজার মতো


পদ্বতি :-


গ্যাসে কড়াই চাপলাম | কড়াইতে প্রয়োজনমতো তেল দিলাম | তেল গরম হলে জলে ধুয়ে আলুগুলো কড়াইতে ছেড়ে দিলাম | আঁচ বাড়িয়ে কমিয়ে আলুগুলো ভাজতে লাগলাম | আলুগুলোতে খুব হালকা রং ধরলেই ,আঁচ কমিয়ে দিলাম হলুদ ,নুন ,অল্প পরিমান চিনি | আবারো আঁচ বাড়িয়ে কমিয়ে ভালো করে নাড়তে লাগলাম | আলুগুলো একটু নরম হলেই দিলাম জলে ধোয়া পেঁয়াজকলি টুকরো গুলো |



আঁচ বাড়িয়ে সমস্ত উপকরণ ভালো করে নাড়তে নাড়তে দিলাম কাঁচালংকার কাটা টুকরো গুলো | কয়েকবার নেড়েচেড়ে নিয়ে আঁচ কমিয়ে দিলাম | মাঝে মাঝে আঁচ বাড়িয়ে নেড়ে নিয়ে ,আবার আঁচ কমিয়ে দিলাম | এইভাবে কয়েকবার করার পর আলু ও পেঁয়াজ মজে যেতেই ,রান্নার স্বাদ দেখে নিলাম|

রান্নার স্বাদ টেস্টি টেস্টি হয়েছে মনে হতেই ,গ্যাস বন্ধ করে দিলাম |


আজ খাবার টেবিলে কাউকে ডাকতেই হয়নি | সবাই খুশি খুশি মুখে অপেক্ষা করছে, কখন আমি সবার পাতে পাতে গরম গরম খাবার গুলো সার্ভ করবো | হালকা অথচ খুব টেস্টি টেস্টি মেনু | আমরা সবাই আনন্দ করে রাতের খাওয়া দাওয়া শেষ করলাম |


আপনারাও খুব খুব আনন্দে থাকুন ,সুস্থ থাকুন , খুশিতে ভরে থাকুন |

123 views0 comments

Comments


bottom of page